রামপাল কয়লাবিদ্যুৎ কেন্দ্র ঘিরে ২শ’ কারখানা!

সুন্দরবনের নতুন ঝুঁকি

0
107

প্রবল বিরোধিতা সত্ত্বেও সুন্দরবনের অদূরে এগিয়ে চলছে রামপাল কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের নির্মাণকাজ? ইতোমধ্যে ভূমি উন্নয়নসহ আনুষঙ্গিক প্রাথমিক কাজ শেষ হয়েছে। থেমে নেই ভিন্ন ভিন্ন প্রকল্পের মাধ্যমে সহায়ক কাজও। আর নির্মাণাধীন এই বিদ্যুৎকেন্দ্রকে ঘিরে এলাকাজুড়ে এখন গড়ে উঠছে বিভিন্ন ধরনের শিল্প কারখানা। এক বছরের ব্যবধানে নতুন আরও ৩৬টি শিল্প প্রকল্প ছাড়পত্র পেয়েছে। এ যেন মড়ার উপর খাঁড়ার ঘা। বিদ্যুৎকেন্দ্রটির কারণে পরিবেশবাদীদের সুন্দরবন ধ্বংসের যে আশঙ্কা তার সঙ্গে নতুন করে যোগ হয়েছে এসব শিল্প কারখানা। সরকারের বাস্তবায়ন পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন বিভাগের (আইএমইডি) প্রতিবেদন অনুযায়ী, এখন পর্যন্ত রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্রের মূল প্রকল্পের ব্যয় হয়েছে প্রায় ৩০০ কোটি টাকা, যা প্রকল্প ব্যয়ের ১ দশমিক ৮ শতাংশ।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, প্রকল্প বাস্তবায়নের উদ্দেশ্যে পিডিবির অধিগ্রহণ করা ১ হাজার ৮৩৪ একর ভূমি থেকে ৯১৫ দশমিক ৫ একর ভূমি দীর্ঘমেয়াদি লিজ দেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে ৪২০ একর ভূমির উন্নয়ন কাজ শেষ হয়েছে। মূল বিদ্যুৎকেন্দ্রের সীমানা প্রাচীর নির্মাণকাজ শেষে চালু করা হয়েছে দুটি ৩৩ কেভি লাইন। এ ছাড়া ২৩০ কেভি স্টার্ট আপ বিদ্যুৎ লাইন নির্মাণের কাজ ইতোমধ্যে শুরু হয়েছে। নিরাপত্তা পর্যবেক্ষণে নির্মাণ করা হয়েছে পাঁচটি ওয়াচ টাওয়ার। গত জুনে প্রকল্প এলাকায় দ্বিতীয় ব্লকের ভূমি উন্নয়ন, সংরক্ষণ ও সীমানা প্রাচীর নির্মাণ প্রকল্প শেষ হওয়ার  বিস্তারিত…