দুর্নীতির কলঙ্ক মাথায় নিয়ে নওয়াজ শরিফের ইস্তফা

0
36

পানামা পেপার্স মামলার রায়ে ‘পদে থাকার অযোগ্য’ ঘোষিত হওয়ার পর সরে দাঁড়িয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ।
দুর্নীতির মাধ্যমে সম্পদের পাহাড় গড়ার অভিযোগ নিয়ে উচ্চপর্যায়ের তদন্তের পর সুপ্রিম কোর্টের পাঁচ সদস্যের বেঞ্চ শুক্রবার সর্বসম্মত এক রায়ে নওয়াজ শরিফকে প্রধানমন্ত্রী পদে থাকার অযোগ্য ঘোষণা করে। এর কিছুক্ষণ পর প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে নওয়াজ শরিফের পদত্যাগের কথা জানানো হয়।

রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়, পাকিস্তানের অর্থমন্ত্রী ইসহাক দারকেও দায়িত্বে থাকার অযোগ্য ঘোষণা করা হয়েছে সুপ্রিম কোর্টের রায়ে।
নওয়াজ পরিবারের সাবেক হিসাবরক্ষক ইসহাক ছিলেন পাকিস্তানের মন্ত্রিসভার প্রভাবশালী সদস্য। আদালতের নির্দেশে তিনিই নওয়াজের পরিবারের সম্পদের তথ্য ও নথি আদালতে উপস্থাপন করেছিলেন।
দেশটির ডন লিখেছে, এ যাবৎকালে পাকিস্তানের
কোনো প্রধানমন্ত্রীই পুরো মেয়াদ শেষ করতে পারেননি। ২০১৮ সালে অনুষ্ঠেয় নির্বাচনের আগ পর্যন্ত সরকার চালিয়ে নেয়ার দায়িত্ব কার ওপর বর্তাবে তা এখনো স্পষ্ট নয়।
গত বছর ফাঁস হওয়া পানামা পেপারসে নওয়াজ শরিফের মেয়ে মরিয়ম ও ছেলে হাসান-হুসেনের নাম আসে। তারা তিনজন ব্রিটিশ ভার্জিন আইল্যান্ডে নিবন্ধিত বিভিন্ন অফশোর কোম্পানির নামে লন্ডনে সম্পত্তি কেনেন বলে ফাঁস হওয়া নথিতে জানা  বিস্তারিত…